পশ্চিমবঙ্গে জয় কিষাণ আন্দোলনের সফলতা, কৃষকদের আংশিক দাবি মেনে নিল সরকার

জয় কিষাণ ডেস্ক
লিখেছেন জয় কিষাণ ডেস্ক পড়ার সময় 2
ফাইল চিত্র

নিজস্ব প্রতিনিধি: দীর্ঘদিন সারা দেশে নানা অঞ্চলের কৃষকেরা ‘জয় কিষাণ আন্দোলন’-এর নেতৃত্বে বিভিন্ন দাবি নিয়ে আন্দোলন, বিক্ষোভ সংগঠিত করে আসছেন। এই আন্দোলনের চাপে মাথা নত করতে বাধ্য হল পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকার। চাষিদের বিভিন্ন দাবির পাশাপাশি দাবি ছিল, কৃষিঋণের বিমা প্রিমিয়াম ৪.৮৫ শতাংশ নেওয়া চলবে না। এটা ২ শতাংশ করতে হবে। পুরোটা না হলেও আংশিক দাবি মেনে নিয়েছে রাজ্য সরকার। এই প্রসঙ্গে ‘জয় কিষাণ আন্দোলন’-এর হুগলি জেলা সভাপতি সুশান্ত কাঁড়ি আমাদের প্রতিনিধিকে জানান, “আমাদের দাবিগুলোর মধ্যে একটা দাবি ছিল, মহাজনি কায়দায় ৪.৮৫ শতাংশ বিমা প্রিমিয়াম নেওয়া চলবে না। তা কমিয়ে দুই শতাংশ করতে হবে। সেটা গতকাল থেকে তিন শতাংশ করে দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ আমরা ১.৮৫ শতাংশ কমাতে সমর্থ হয়েছি। এর ফলে প্রতি ৫ লাখ টাকা কৃষি ঋণে কৃষকদের ৯৫০০ টাকা সাশ্রয় হবে৷ এটি আমাদের আন্দোলনের আংশিক সাফল্য বলেই ধরা যেতে পারে এবং এটি সারা পশ্চিমবঙ্গের ক্ষেত্রেই প্রযোজ্য।”

উল্লেখ্য, শস্য বীজ ও সারের কালোবাজারি বন্ধ করা, সারের সঙ্গে আনুষাঙ্গিক হিসেবে অপ্রয়োজনীয় পণ্য বিক্রি বন্ধ করা, চাষিদের থেকে চড়া হারে ফসল বিমার অর্থ নেওয়া বন্ধ করা সহ অন্যান্য দাবিতে ‘জয় কিষাণ আন্দোলন’ দীর্ঘদিন ধরেই রাজ্য তথা কেন্দ্রের কৃষক বিরোধী নীতির বিরুদ্ধে তাঁদের আন্দোলন কর্মসূচি বজায় রাখছিল। আর তাতেই এই সাফল্য বলে মনে করছেন রাজনৈতিক মহল। সম্প্রতি, এইসব দাবিকে সামনে রেখে পোলবা দাদপুরের কৃষকেরা ‘জয় কিষাণ আন্দোলন’-এর হুগলি জেলা কমিটির নেতৃত্বে বাইক মিছিল করে সহ কৃষি অধিকর্তার কাছে গিয়ে দাবিসনদপত্রও পেশ করেন৷

ট্যাগ করা হয়েছে:
এই নিবন্ধটি শেয়ার করুন
মতামত দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *