জয় কিষাণ: ২৯ জানুয়ারি ২০২৩

জয় কিষাণ ডেস্ক
লিখেছেন জয় কিষাণ ডেস্ক পড়ার সময় 4

বিশেষ ফটো ফিচার: ২৬ জানুয়ারি দেশজুড়ে সংযুক্ত কিষাণ মোর্চার নানা কর্মসূচি, পর্ব – ১

সংযুক্ত কিষাণ মোর্চার ডাকে ২৬ জানুয়ারি বৃহস্পতিবার সারা দেশের কৃষকরা বিভিন্ন রাজ্যের জেলায় জেলায় ট্রাক্টর মিছিল, পদযাত্রা এবং আরও নানা কর্মসূচি পালন করলেন। দিল্লির কৃষক আন্দোলনে শহিদ হওয়া চাষিদের স্মরণ করলেন তাঁরা। আমরা ফটো ফিচারের মাধ্যমে ধারাবাহিকভাবে সংযুক্ত কিষাণ মোর্চার এদিনের দেশব্যাপী ট্রাক্টর মিছিল, পদযাত্রা এবং শহিদ স্মরণ অনুষ্ঠানের ছবি ও সেই সংক্রান্ত তথ্যালাপ তুলে ধরছি। প্রথম পর্বে থাকছে পশ্চিমবঙ্গ, বিহার, ওড়িশা, মহারাষ্ট্র, তামিলনাড়ু এবং উত্তরাখণ্ড।

বিশদে দেখতে এখানে ক্লিক করুন

ক্ষেতমজুর সমাবেশে দেওয়া হল আন্দোলনের হুঁশিয়ারি

নিজস্ব প্রতিনিধি: ঐক্যবদ্ধ সংগ্রামের মাধ্যমে জোরালো করতে হবে বিকল্প নীতির লড়াই। শুক্রবার এই আহ্বান জানানো হল সারা ভারত ক্ষেতমজুর সংগঠনের সমাবেশ থেকে। ইউনিয়ন সরকারের কৃষক-ক্ষেতমজুর-বিরোধী নীতির ফলে আমাদের অন্নদাতাদের পরিস্থিতি সংকটজনক। রাজ্যও কৃষক বিরোধী অবস্থানের অভিযোগমুক্ত নয়। আর তার ফলেই এ দিনের সমাবেশ থেকে ঘোষনা করা হয় তীব্র আন্দোলনের পথেই কেন্দ্রে-রাজ্যে বিজেপি এবং তৃণমূল সরকারের পতন ঘটাতে হবে।

শুক্রবার মুর্শিদাবাদের ফরাক্কা সৈয়দ নুরুল হাসান কলেজের মাঠে প্রকাশ্য সমাবেশের মাধ্যমে শুরু হয় সম্মেলন। এদিন সারা ভারত ক্ষেতমজুর ইউনিয়নের সভাপতি এ বিজয়রাঘবন বলেন, “দেশ ভাঙার চেষ্টা করছেন নরেন্দ্র মোদি। হিন্দু-মুসলমান বিভাজনের অপচেষ্টা রুখবেন কৃষক-ক্ষেতমজুরেরা। মানুষ ঐক্যবদ্ধ হয়েই দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবেন”। তিনি আরও বলেন, “গরিব মানুষের স্বাস্থ্য, শিক্ষা, বাসস্থানের দাবিতে দেশজুড়ে আন্দোলন তৈরি করতে হবে। গরিব মানুষের ঐক্যবদ্ধ শক্তিতে লড়াইয়ের পথেই দিদি-মোদির রাজত্বের অবসান ঘটাতে হবে”।    

মহারাষ্ট্রে জলের ট্যাঙ্কে উঠে চাষির প্রতিবাদ

মহারাষ্ট্রের ভান্ডারা জেলার লখান্দুর তালুকের কৃষক প্রকাশ নাকাতোদে। প্রধানমন্ত্রী গ্রামসড়ক যোজনার অধীনে জমি অধিগ্রহণ ছাড়াই তাঁর খামার থেকে একটি পাকা রাস্তা তৈরি করা হয়েছিল। এর প্রতিবাদে তিনি জলের ট্যাঙ্কে উঠে অভিনব প্রতিবাদ জানালেন।

যখন দেখা গেল প্রশাসনিক কর্তৃপক্ষ দাবি মানছে না, তখন এই কৃষক দুপুর নাগাদ নিজের গায়ে কেরোসিন ঢেলে আত্মহননের চেষ্টা করেন। যা পুলিশ কর্মকর্তা ও প্রশাসনিক আধিকারিকদের আতঙ্কে ফেলে। অবশেষে প্রশাসনিক আধিকারিকরা বিক্ষোভরত কৃষকদের দাবিতে সম্মত হন। তাঁরা প্রকাশ নাকাতোদেকে স্ট্যাম্প পেপারে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার কথা লেখেন। প্রায় সাত ঘণ্টা পর বিক্ষোভ প্রত্যাহার করেন ওই কৃষক।

সূত্র – এবিপি মাঝা

বিশদে জানতে ভিডিওটি দেখুন

পাঞ্জাবে মাদকের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ কৃষকদের

আম আদমি পার্টির জাতীয় আহ্বায়ক এবং দিল্লির মুখ্যমন্ত্রী অরবিন্দ কেজরিওয়াল পাঞ্জাবের পুতলিঘরে তাহে আম আদমি ক্লিনিকের উদ্বোধনের আসার আগে ক্যান্টনমেন্ট এলাকায় একদল কৃষককে পুলিশ আটক করে।

কিষাণ নওজওয়ান সংঘর্ষ কমিটির সভাপতি বাচিত্তর সিং কোটলার নেতৃত্বে কৃষকরা গত ২০ দিন ধরে এলাকায় ছড়িয়ে থাকা মাদকের আতঙ্ক নিয়ে আট্টারির ডেপুটি সুপারিনটেনডেন্ট অফ পুলিশ-এর অফিসের বাইরে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেন।

কৃষক কর্মীরা দাবি করেছেন যে তারা কেজরিওয়ালের সামনে মাদকের সমস্যাটি উত্থাপন করতে চেয়েছিলেন।

সূত্র- দ্য ট্রিবিউন

বিশদে পড়তে এখানে ক্লিক করুন

পাঞ্জাবে রাস্তায় ঘুরে বেড়ানো গবাদি পশুর ইস্যুতে কৃষকদের বিক্ষোভ

বিভিন্ন গ্রামের কৃষকরা গবাদি পশু বোঝাই ট্রাক্টর নিয়ে পাঞ্জাবের বার্নালার জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে পৌঁছে বিক্ষোভ দেখান। রাস্তায় ঘুরে বেড়ানো গবাদি পশু বিভিন্ন সময়ে ফসলের ক্ষতি করছে এবং নানা দুর্ঘটনা ঘটে চলেছে। বিক্ষোভকারীরা জানান যে পাঞ্জাব সরকার তাঁদের থেকে কর নেয় কিন্তু এই সমস্যায় শুধুমাত্র আশ্বাস দেওয়া হয়েছে। এখনও পর্যন্ত কোনও ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়নি।

প্রশাসনের আশ্বাসে এবারের মতো কৃষকরা বিক্ষোভ তুলে নিলেও যদি পরবর্তীতে উপযুক্ত ব্যবস্থা না নেওয়া হয় তবে আন্দোলন আরও জোরদার করা হবে বলে জানান তাঁরা।

সূত্র- দ্য ট্রিবিউন

বিশদে পড়তে এখানে ক্লিক করুন

ট্যাগ করা হয়েছে:
এই নিবন্ধটি শেয়ার করুন
মতামত দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *