জয় কিষাণ: ১ মার্চ ২০২৩

জয় কিষাণ ডেস্ক
লিখেছেন জয় কিষাণ ডেস্ক পড়ার সময় 4

বেড়াবেড়িতে চাষিদের বিক্ষোভ

নিজস্ব সংবাদদাতা: ১২০০ টাকা কুইন্টাল দরে আলু কেনা, গরিব মানুষদের পাকা ঘর দেওয়া, ১০০ দিনের কাজের বকেয়া মেটানো এবং অন্যান্য দাবিতে বিভিন্ন গণসংগঠনের উদ্যোগে রবিবার সিঙ্গুরের বেড়াবেড়ি পঞ্চায়েতে মিছিল হয়। মিছিলটি খাসেরভেড়ি থেকে শুরু হয়ে পূর্বপাড়া-বেড়াবেড়ি বাজার হয়ে মধ্যপাড়া-জয়মোল্লা, চককালিকাবুড়ি গ্রামে শেষ হয়। শুভাশিস দাস উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন। কৃষক নেতা অভিজিৎ কোলে, ক্ষেতমজুর নেতা কাশীনাথ খামারু, যুবনেতা মানব মালিক ও অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন এই বিক্ষোভে।

আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দিল ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়ন

উত্তরপ্রদেশ সরকার হায়দারপুর জলাভূমিতে চাষাবাদের বিরুদ্ধে নানা দমনমূলক পদক্ষেপ নিয়েছে। হস্তিনাপুর বন্যপ্রাণী অভয়ারণ্যে মধ্যে ৬৯০৮ হেক্টর রামসার সাইট নিয়ে আন্দোলনের ডাক দিয়েছে বিকেইউ। তাদের বক্তব্য।, যে দেশে গমের ফসলের মূল্য কোটি টাকা সেখানে আজও মানুষ না খেয়ে থাকে। যে সকল ভূমিহীন কৃষক ঋণ নিয়েছেন তাঁদের জমি থেকে উচ্ছেদ করলে ব্যাপক আন্দোলন হবে বলে হুঁশিয়ারি দেন এই সংগঠনের চাষিরা।

সূত্র- টাইমস অফ ইন্ডিয়া

বিশদে পড়তে এখানে ক্লিক করুন

বকেয়া পূরণের দাবিতে আখ চাষিদের অনশন

হরিয়ানার আম্বালায় আখ চাষিরা দাবি করছেন যে চিনিকল কর্তৃপক্ষের কাছে একশো কোটিরও বেশি বকেয়া রয়েছে। একাধিক বার আশ্বাস সত্ত্বেও কৃষকদের টাকা দেওয়া হচ্ছে না। আম্বালার নারায়ণগড় চিনিকলের বাইরে সকাল ১০টায় ছয় কৃষক ধর্মঘট শুরু করেন যা বিকেল ৫টায় শেষ হয়। সোমবার সংযুক্ত গন্না কিষাণ কমিটির নেতৃত্বে বেশ কয়েকজন কৃষক ও কর্মী নারায়ণগড় চিনিকলের বাইরে আখের বকেয়ার দাবিতে অনশন শুরু করেছেন।

ভারতীয় কিষান ইউনিয়নের মুখপাত্র তেজভীর সিং বলেন, “অর্থের অভাবে আখচাষিরা তাঁদের সন্তানদের স্কুলের ফি দিতে পারছেন না”। চিনিকল কর্তৃপক্ষের কাছে এই বিষয়ে একটি স্মারকলিপি জমা দেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

সূত্র – হিন্দুস্থান টাইমস

বিশদে পড়তে এখানে ক্লিক করুন

বন্দি কৃষকদের মুক্তির দাবি জানালেন রবি আজাদ

কেএমপি এবং কেজিপিতে যে টোল প্লাজা আছে সেখানে টোলপ্লাজার কর্মীরা আশেপাশের গ্রামবাসীদের এবং কৃষকদের ওপর লাগাতার হয়রানি করে চলেছে। এছাড়াও ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়নের পদাধিকারিকদেরও টোল প্লাজায় হয়রানির স্বীকার হতে হচ্ছে। এই ইস্যুগুলি নিয়ে টোল কোম্পানি ও টোল প্লাজাগুলিকে শিক্ষা দেওয়ার উদ্দেশ্যে মঙ্গলবার উত্তরপ্রদেশের দুহাই টোল প্লাজা থেকে হরিয়ানার মৌজপুর ছাঁইসা টোল প্লাজা পর্যন্ত কৃষকরা এক প্রতিবাদ কর্মসূচির আয়োজন করেন। সেখানে ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়নের যুব নেতা সিদ্ধান্ত এবং কৃষকরা যাঁরা ওখানে ধর্না দিচ্ছিলেন তাঁদের পুলিশ গুণ্ডাগিরি করে আটক করে। সেখানে ২৫ জনের অধিক কৃষককে ফরিদাবাদ থানায় নিয়ে যাওয়া হয়। দোহাইতে ১০০০ জন কৃষক ও ভারতীয় কিষাণ ইউনিয়নের পদাধিকারিকরা ধর্নায় বসে আছেন। মঙ্গলবার কৃষক নেতা রবি আজাদ একটি ভিডিও বার্তায় বলেন, “আমরা টোল কোম্পানি ও ফরিদাবাদ পুলিশ-প্রশাসনকে স্পষ্ট করে বলছি আমাদের সমস্ত চাষিদের মুক্ত করা হোক, টোল প্লাজায় গুন্ডাগিরি বন্ধ হোক। যতক্ষণ আমাদের সাথীরা মুক্ত না হবে ততক্ষন দোহাইতে এই ধর্না চলবে”। টোল কর্তৃপক্ষ কৃষকদের দাবি না মানলে পরবর্তীতে আরও বৃহত্তর আন্দোলনের পথে হাঁটার হুশিয়ারিও দেন তিনি।

সূত্র- সংযুক্ত কিষাণ মোর্চা

বিশদে জানতে ভিডিওটি দেখুন

পাঞ্জাবের মুকেরিয়ানের চিনিকলে আখচাষিদের বিক্ষোভ

অন্যান্য মিলের আখ চাষিরা বকেয়া ইতিমধ্যে পেলেও, এই মরশুমে কৃষকরা সবচেয়ে বেশি বকেয়া পাবেন মুকেরিয়ান চিনিকলের থেকে। ইউনাইটেড ফার্মার্স অ্যাসোসিয়েশনের নেতৃত্বে কৃষকরা গত শনিবার মুকেরিয়ান চিনিকলের গেট জ্যাম করেন এবং ছয় ঘণ্টার দীর্ঘ অবস্থান-বিক্ষোভ করেন।

কিষাণ সংগ্রাম কমিটির সৎনাম সাহনি বলেন, “আখ চাষিরা ভোগপুর এবং বুট্রান চিনিকল থেকে সময়মতো তাঁদের বকেয়া অর্থ পাচ্ছেন না।যদিও আখ চাষিদের প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছিল যে তাঁরা ফসল বিক্রি করার ১৪ দিনের মধ্যে সমস্ত অর্থ পাবেন। ভোগপুর চিনিকল সময়মতো কৃষকদের বকেয়া অর্থ পরিশোধ করছে না। সর্বশেষ যে তারিখে আখ চাষিরা বুট্রান চিনিকল থেকে তাঁদের বকেয়া পেয়েছিলেন তা ছিল ৫ জানুয়ারি। তাই, এই চিনিকল থেকেও আমাদের গত ৫৩ দিনের বকেয়া প্রাপ্য আছে”।

কৃষকরা ১২ মার্চ পর্যন্ত চারটি কিস্তিতে ১১৭ কোটি টাকার সম্পূর্ণ বকেয়া পাবেন, এই আশ্বাস পাওয়ার পরে ধর্না তুলে নেওয়া হয়।

সূত্র- দ্য ট্রিবিউন

বিশদে পড়তে এখানে ক্লিক করুন

ট্যাগ করা হয়েছে:
এই নিবন্ধটি শেয়ার করুন
মতামত দিন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *